ধর্মপাশায় স্বাধীনতার পঞ্চাশ বছর সুবর্ণজয়ন্তী ও বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা

Saturday, March 27th, 2021

গিয়াস উদ্দিন রানা,ধর্মপাশা(সুনামগঞ্জ):: সুনামগঞ্জের ধর্মপাশা আওয়ামী লীগের উদ্যোগে ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতার পঞ্চাশ বছর সুবর্ণজয়ন্তী ও জাতির শ্রেষ্ট সন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা অনুষ্টান উপজেলা সদর বঙ্গবন্ধু চত্বর অনুষ্টিত হয়। উপজেলা আওয়ামী লীগ অপর গ্রুপের নেতৃত্বে বেলা ১১টায় একটি বণাঢ্য র‌্যালী উপজেলা সদর এর জনগুরুত্বপূর্ণ স্থান প্রদক্ষিন করে।
উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে মহান স্বাধীনতা দিবস উদযাপন উপলক্ষে প্রতিটি সরকারী ভবনে আলোক শয্যা, রাত ৯টায় শহিদ মিনারে মোমবার্তির আলোকশয্যা, ভোর ৫টায় শহিদ মিনারে ফুলের তোরাদিয়ে বীর শহিদদের সম্মান জানানো হয়। পরবর্তীতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুম্পস্তবক অর্পণ, মহেষখলা মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিসৌধে পুম্পস্তবক অর্পণ করা হয়। পরিশেষে স্থানীয় জনতা মডেল উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে শরীর চর্চা প্রদর্শন এবং বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধণা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্টানসহ বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যেদিয়ে দিবসটি পালিত হয়। রাতে উপজেলা হল রুমে মুক্তিযুদ্ধা বিষয়ক চলচ্চিত ঈস্খদর্শন, আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্টানের আয়োজন করা হয়।
ধর্মপাশা উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ সহ অঙ্গসঙ্গঠনের উদ্যোগে উপজেলা যুবলীগের সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেন রোকন এর সহযোগীতায় ২৬ মার্চ মহান স্বাধীনতার পঞ্চাশ বছর সুবর্ণজয়ন্তী ও জাতির শ্রেষ্ট সন্তান বীর মুক্তিযোদ্ধাদের সংবর্ধনা অনুষ্টানের আয়োজন করা হয়।
২৬ মার্চ বিকাল ৫টায় বঙ্গবন্ধু চত্বর অনুষ্টানের আয়োজন করেন, উপজেলা যুবলীগ সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোজাম্মেল হোসেন রোকন এর সভাপতিত্বে, প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন স্থানীয় সংসদ সদস্য মোয়াজ্জেম হোসেন রতন। প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক শামীম আহমেদ বিলকিস। এসময় আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, সেচ্ছাসেবকলীগ, কৃষকলীগ, শ্রমিকলীগ ও যুব মহিলা লীগের নেতাকর্মীরা সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন।
অপর দিকে উপজেলা আওয়ামী মীলীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক জুবায়ের পাশা হিমু, যুগ্ন সাধারন সম্পাদক শামীম আহমদ মুরাদ ও উপজেলা সদর ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ সেলিম আহমেদ এর নেতৃত্বে ভোর ৬ টায় ২নং মডেল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় এর শহিদ মিনারে ফুলের তোরা দিয়ে সকল শহিদদের শ্রদ্ধা জানানো হয়। পরিষেশে একটি বণাঢ্য র‌্যালী শহরের জনগুরুত্বপূর্ণ স্থান গুলো প্রদক্ষিন করে।