বরিশাল নগরীতে পুএবধুর বাবার টাকা আত্নসাৎ করার মামলায় শশুর গ্রেপ্তার

Friday, August 16th, 2019

বিজয় নিউজ ।। বরিশালে এক পুএবধুর বাবার কাছ থেকে ১৫ লক্ষ টাকা হাতিয়ে নেয়া প্রতারক ওয়ারেন্ট ভুক্ত আসামি খোরশেদ আলমকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ।

মামলা সুএে জানা যায় , বরিশাল চীফ মেট্রোপলিটন আদালতে চলতি বছরের এপ্রিল মাসের ১১ তারিখে ফৌঃ দন্ডবিধি আইনের ৪০৬/৪২০ ধারায় প্রতারনা মামলা দায়ের করে পুএবধুর বাবা। মামলায় লেখা হয় বাদীর মেযের শশুর খোরশেদ আলমের বাসা নির্মানের জন্র্য পুএবধুকে ২০ লক্ষ টাকা তার বাবা নিকট ধার বাবদ আনার জন্য বলে। এক পযার্য় বাদির মেয়ে বাবার কাছে বিষয়টি বললে বাবা তার মেয়ের সুখ-শান্তির কথা চিন্তা করে ২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারীর মাসে খোরশেদ আলম, তার ছেলে সোহেল ও তার স্ত্রী গুলশান আরা বেগমের উপস্থিতে স্ট্যামে সাক্ষরের মাধ্যমে ১৫ লক্ষ টাকা ধার প্রদান করেন। টাকা ৬ মাসের মধ্যে পরিশোধ করবে বলে অঙ্গিকার করে।

কিন্তু র্দীঘ ২ বছর অতিবাহিত হলে ও টাকা পরিশোধ করছে না বরং ধারকৃত টাকা চাইতে গেলে পুএবধুকে মানষিক ও শারিরিকভাবে নির্যাতন শুরু করে। এবং পুএবধুকে মিথ্যা অপবাদ দিয়ে তার বাবার বাড়িতে পাঠিয়ে দেয় এবং তালাক দেয়ার হুমকি দেয় স্বামী সোহেল। এসময় বাদি মেয়ের জামাই ও শশুরে বাড়িতে গেলে তাদেরকে অপমান করে । এবং বলে যে টাকা দেযা হয়েছে তা মনে করবেন জামাইকে যৌতুক দিয়েছেন। এক পর্যায় কথা কাটাকাটি হলে খোরশেদ আলম (বেআই) বিভিন্ন মামলায় জরিয়ে দেয়ার হুমকি ও দেয়।

পরে বাদী এ বিষয় চলতি বছরের ১১ এপ্রিল আদালতে একটি প্রতারনা মামলা দায়ের করলে আসামিরা বরিশাল থেকে পালিয়ে য়ায়। র্দীঘ দিন পালিয়ে থাকার পরে ঈদে আসামির নিজ বাড়ি জমির খান সড়কে না উঠে বৈদ্যপাড়ায় তার মেয়ের বাসায় উঠে । আসামির বিরুদ্ধে ওয়ারেন্ট থাকায় কোতয়ালী মডেল থানার পুলিশ একাধিকবার জমির খান সড়কের আসামির নিজ বাড়িতে অভিযান করে ও পায়নি ।

পরে পুলিশ গোপন সংবাদের ভিওিতে আসামির মেয়ের বাসায় অভিযান চালিয়ে খোরশেদ আলমকে গ্রেপ্তার করে।