বিশেষ সম্মাননা পেলেন সাইফ স্পোর্টিংয়ের এক সমর্থক

Thursday, August 1st, 2019

মোহামেডানের অন্তঃপ্রাণ সমর্থক ‘আতা ভাইকে’ ফুটবল অঙ্গনের সবাই চেনেন। মোহামেডানের ম্যাচে তাকে দেখা যায় সাদাকালো পতাকা হাতে দলকে সমর্থন দিতে। সারাক্ষণ গলা ফাটিয়ে খেলোয়াড়দের উৎসাহ দেন গ্যালারি থেকে। দল হারুক-জিতুক থামেন না তিনি। আতা ভাইয়ের মতোই এক সমর্থক পেয়ে গেছে সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব। প্রায় ৬০ বছর বয়সী এই সমর্থকের নাম সিদ্দিকুর রহমান।

সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবের হোম ভেন্যু ছিল ময়মনসিংহের রফিক উদ্দিন ভুঁইয়া স্টেডিয়াম। এ ভেন্যুতে ১২ ম্যাচ খেলেছে সাইফ। সব ম্যাচেই গ্যালারিতে সরব উপস্থিতি ছিল এই সিদ্দিকুর রহমানের। তার বাগি নেত্রকোনায়। সাইফের প্রতিটি ম্যাচেই নেত্রকোনা থেকে ময়মনসিংহের ভেন্যুতে উপস্থিত হয়ে দলকে সমর্থন দিয়েছেন এই বর্ষীয়ান ফুটবলভক্ত।

সাইফ নতুন ক্লাব। তাদের জন্য এমন ‘পাগল এক সমর্থক’ পাওয়া ক্লাবের জন্য দারুণ ব্যাপার। আর ক্লাবও তাদের ওই সমর্থককে লিগ শেষে দিয়েছে অনন্য সম্মাননা। আজ (বৃহস্পতিবার) ময়মনসিংহে লিগের শেষ ম্যাচ খেলেছে সাইফ। ম্যাচের পর সিদ্দিকুর রহমানকে সেরা সমর্থকের জন্য ক্রেস্ট দিয়ে সম্মাননা জানিয়েছে সাইফ স্পোর্টিং ক্লাব। সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার নাসির উদ্দিন চৌধুরী এ সমর্থকের হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন। এ সময় দলের কোচ-ম্যানেজারসহ অন্যান্য কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

‘আমরা এ ভেন্যুতে ১২ ম্যাচ খেলেছি। সব ম্যাচেই তাকে গ্যালারিতে দেখা গেছে। আমরা তার জন্য কিছুই করিনি। অথচ নিজের গাঁটের পয়সা খরচ করে নেত্রকোনা থেকে খেলা দেখতে এসেছেন। তাই আমরা তাকে এ সম্মাননা দিয়েছি। এই সিদ্দিকুর রহমানের মধ্যে মোহামেডানের আতা ভাইয়ের মতো চরিত্র দেখতে পেয়েছি। ফুটবলের এমন ভক্ত পাওয়া এখন দুস্কর’- বলেছেন সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ইঞ্জিনিয়ার নাসির উদ্দিন চৌধুরী।

হোম ভেন্যুতে ১২ ম্যাচ খেলে সাইফ জিতেছে ৭টিতে। ক্লাবটি এবার ২৪ ম্যাচে ১৪ জয় এবং ৫ ড্রয়ে ৪৭ পয়েন্ট নিয়ে প্রিমিয়ার লিগে হয়েছে চতুর্থ। আজ তারা ৩-১ গোলে মুক্তিযোদ্ধাকে হারিয়ে প্রিমিয়ার লিগ শেষ করেছে।